নেই কোনও বাদ্যযন্ত্র, সম্পূর্ণ খালি গলায় অসাধারন গান ধরলেন ঋতাভরী, ভাইরাল ভিডিও

মা ও দিদিকে নিয়ে স্মৃতির ভেলায় ভাসলাম ঋতাভরী চক্রবর্তী। অভিনেত্রী ঋতাভরী চক্রবর্তী (Ritabhari Chakraborty) যে ঘুরতে ভালোবাসেন তা তাঁর অনুরাগীরা খুব ভালোভাবেই জানেন। সুযোগ পেলেই বেরিয়ে পড়েন ঘুরতে,

কখনো সোলো ট্রিপ আবার কখনো বন্ধু বান্ধবদের সাথে আবার কখনো পরিবারের সঙ্গে। তেমনি এই লকডাউনের মধ্যে চিকিৎসকের পরামর্শে মা শতরূপা সান্যাল (Satarupa Sanyal) এবং দিদি চিত্রাঙ্গদা চক্রবর্তীর (Chitrangada Chakraborty) সাথে চলে গিয়েছেন পাহাড়ের দেশে।

নিজের ইনস্টাগ্রামে ঋতাভরীর একটি পোস্ট দেখা গিয়েছে, যেখানে মা ও দিদির সাথে হোটেলের সামনে বসে রয়েছেন তিনি। তারই সাথে তিনজনই গলা ছেড়ে গান গাইছেন, “আহা কি আনন্দ আকাশে বাতাসে”। ভিডিওটি নিজের ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করে ঋতাভরী লিখেছেন, “শতবার্ষিকী প্রিয় জায়গায় তার গান”। যদিও কোথায় গিয়েছেন তা খোলাসা করে বলেননি ঋতাভরী তবে তাদের গন্তব্য স্থান জানতে পারা গেল ঋতাভরীর মা শতরূপা সান্যালের সোশ্যাল মিডিয়া একাউন্ট থেকে।

শতরূপা সান্যালের ফেসবুক একাউন্টে চোখ রেখে বোঝা গেল দুই মেয়েকে নিয়ে পরিচালক ঘুরতে গিয়েছেন দার্জিলিঙে (Darjeeling)। ভিডিওটি পোস্ট করে শতরূপা সান্যাল লিখেছেন, ” ১৫ বছর আগে তিতিন পলিনকে নিয়ে এসেছিলাম দার্জিলিং। আমার শুটিং ছিল “কালো চিতা”র। তখন ওরা এত্তটুকুন ছিল। ডাক্তারের পরামর্শে এখন আমাদের কিছুদিনের জন্য প্রকৃতির কাছে আসা। আবার মা মেয়ের ইউনিট এক সাথে, দার্জিলিং-এ! সেই হোটেল এলগিনেই!… ভালো থাক সবাই। ভালো থাক আমাদের বাংলা। সুস্থ হয়ে উঠুক পৃথিবী”।

একই সাথে শতরূপা সান্যাল নিজের ফেসবুকে আরো কিছু ছবি পোস্ট করেছেন, যেখানে দেখা যাচ্ছে হোটেলের সামনে প্রকৃতির সৌন্দর্য, কখনো কুয়াশা আবৃত প্রকৃতির মাঝখানে দাঁড়িয়ে রয়েছেন তিনি আবার কখনো সবুজে ঘেরা হোটেলের সামনে বসে থাকতে দেখা যাচ্ছে তাকে, ছবিগুলো পোস্ট করে ক্যাপশনে লিখেছেন, “কখনো মেঘ কখনো বৃষ্টি কখনো নরম আলো, চিরযৌবনা রহস্যময়ী দার্জিলিং”।

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন

Check Also

শাড়ির সঙ্গে মেহন্দিতে আঁকা ব্লাউজ, ভিডিও ভাইরাল

সাধারণত শাড়ি সব জায়গায় উপযুক্ত পোশাক হিসেবে বিবেচিত হয়। শাড়ি-ব্লাউজ দুটো মিলিয়েই সম্পূর্ণ হয়। ব্লাউজের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *