হঠাৎ দেখা গেল বিষধর সাপ, ধরতে গিয়ে রেগে গিয়ে মারলো ছোবল, ঘটলো বিপত্তি, তুমুল ভাইরাল ভিডিও

বর্তমান সময়ে বৈজ্ঞানিক প্রযুক্তির উন্নতির সাহায্যে বহু কিছুই জটিল জিনিস আমাদের হাতের মধ্যে খুব সহজেই ধরা দিয়েছে, তা আমরা অস্বীকার করতে পারবনা।

বিজ্ঞানের উন্নতির সাথে সাথে আমরা নিজেদের মনোরঞ্জনের বিষয়গুলোকে এখন হাতের মুঠোয় আনতে পেরেছি। বিজ্ঞানের সাথে সাথে উন্নত হয়েছে প্রযুক্তির।

এখন আমরা মনোরঞ্জনের জন্য টেলিভিশনও হাতের মুঠোয় আনতে পেরেছি। স্মার্ট ফোনের মাধ্যমে আমরা এখন যেখানে সেখানে টেলিভিশন উপভোগ করার সুবিধা পেয়েছি।

যত সময় যাচ্ছে ততই যেনো আমরা বিজ্ঞানের উন্নতির সাথে সাথে প্রযুক্তিগুলিও হাতের মুঠোর মুষ্ঠিবদ্ধ করতে পেরেছি।

এই বিজ্ঞানের অগ্রগতির ফল স্বরূপ এখন আমরা সোশ্যাল মিডিয়া থেকেই আমাদের মনোরঞ্জনকে মুষ্ঠিবদ্ধ করতে সফল হয়েছি।

এখন আমরা সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমেই খেলা, গানবাজনা, খবরাখবর নিজের হাতের মধ্যেই উপভোগ করতে পারি।

সোশ্যাল মিডিয়া হলো বিজ্ঞানের অবদানগুলির মধ্যে অন্যতম শ্রেষ্ঠ অবদান। যার মাধ্যমে আপনার থেকে দূরে কোনো মানুষের সাথে নিমিষে বার্তা লাভ করা যায়।

এই সোশ্যাল মিডিয়ার সাহায্যে বহু থেমে যাওয়া প্রতিভার নতুন করে আত্মপ্রকাশ ঘটেছে। সোশ্যাল মিডিয়ার সাহায্যে বহু খবরাখবর হাতের মুঠোয় যেকোনো স্থানে তৎক্ষণাৎ জেনে নিতে পারি।

সোশ্যাল মিডিয়ার সাহায্যে ব্যবসা বাণিজ্যের বিভিন্ন তথ্য আদানপ্রদান নিমিষেই সম্পন্ন করতে পারি। সোশ্যাল মিডিয়ার সাহায্যে আমরা ঘরে বসেই বিভিন্ন বিষয়ক শিক্ষা নিমিষেই গ্রহণ করতে পারি।

সোশ্যাল মিডিয়ার সাহায্যে প্রাকৃতিক বিভিন্ন অবস্থা সমন্ধে জানতে পারি এবং দুর্যোগের পূর্ববর্তী সতর্কতা গ্রহণ করতে পারি।

সোশ্যাল মিডিয়াতে আপনি আপনার প্রতিভার আত্মপ্রকাশ ঘটিয়ে রাতারাতি স্টার হয়ে যেতে পারেন। সোশ্যাল মিডিয়ায় বহু মানুষ তার প্রতিভার ভিডিও আপলোড করেন,

এবং জনপ্রিয় হয়ে ওঠেন নেটিজেনদের মাঝে। সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে খুব কম সময়ে একটি মানুষ তার অসামান্য প্রতিভা সকল মানুষজনের কাছে তুলে ধরতে পারেন।

সম্পূর্ণ বলতে গেলে এটি বৈজ্ঞানিক প্রযুক্তির এক সম্পূর্ণ সুবিধাপূর্ন মাধ্যমগুলোর প্যাকেজ। বহু মানুষের বিভিন্ন সাহসিকতার ভিডিও ভাইরাল হয় এই সোশ্যাল মিডিয়ায়।

ইদানিং এক সাপুড়ে সাহসিকতার সাথে একটি বিষধর চন্দ্রবোড়া সাপ উদ্ধার করছেন সেই ভিডিও ভাইরাল হচ্ছে এই সোশ্যাল মিডিয়ায়।

ভিডিওটিতে দেখা যাচ্ছে এক ব্যক্তির বাড়িতে একটি বিষধর চন্দ্রবোড়া সাপ ঢুকে পড়ে এবং ওই ব্যক্তি এই বিষয়টি দেখতে পান।

অতঃপর ওই ব্যক্তি এক সাপুড়েকে খবর দেন। অতঃপর সাপুড়ে আসেন এবং সাপুড়ে সাহসিকতার সাথে ওই সাপটিকে উদ্ধার করেন।

সাপটি সাপুড়ের পায়ে একটি কামড় দিয়ে বিষ নির্গত করেছে তা ভিডিওটিতে দৃশ্যমান, কিন্তু সাপুড়ের পায়ে মোটা চামড়ার জুতো ছিল বলে সাপুড়ের কোনো ক্ষতি হয়নি।

এই মুহূর্তটি ওই সাপুড়ে ক্যামেরাবন্দী করে সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করেছেন। এই ভিডিওটি নিমিষে ভাইরাল হয় এই সোশ্যাল মিডিয়ায়।

ভিডিওটিতে সাপুড়ের সাহসিকতা দেখে অবাক সোশ্যাল মিডিয়ার দর্শকরা। ভিডিওটির অন্তিমে দেখা যাচ্ছে সাপুড়ে সাপটিকে একটি নির্জন এলাকায় মুক্ত করছেন।

এই ভিডিওটি সোশ্যাল মিডিয়ায় বহু ভাইরাল ভিডিওর তালিকায় জায়গা করে নিয়েছে। এই ভিডিওটি দেখে সোশ্যাল মিডিয়ার দর্শকরা ওই সাপুড়ের দিকে প্রশংসার ঝড় তুলেছেন।

আপনিও এই ভিডিওটি দেখতে পারেন এবং উপভোগ করতে পারেন। এই ভিডিওটি Bankim Snakesaver ইউটিউব চ্যানেলে দুই মাস আগে আপলোড করা হয়েছে।

Check Also

শাড়ির সঙ্গে মেহন্দিতে আঁকা ব্লাউজ, ভিডিও ভাইরাল

সাধারণত শাড়ি সব জায়গায় উপযুক্ত পোশাক হিসেবে বিবেচিত হয়। শাড়ি-ব্লাউজ দুটো মিলিয়েই সম্পূর্ণ হয়। ব্লাউজের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *