করোনা টিকার নিবন্ধন করতে এসে জানতে পাড়লাম আমরা মৃত

ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জ উপজেলার করোনার টিকা নিবন্ধন করতে গিয়ে নিজেদের মৃত জানলেন মোফাজ্জল হোসেন (২১) ও শিপন মিয়া (৩২)। ফলে টিকা দিতে পারেননি তারা। মোফাজ্জল হোসেন উপজেলার রাজিবপুর ইউনিয়নের ৫ নম্বর ওয়ার্ডের স্বল্প চরপাড়া গ্রামের জসিম উদ্দিনের ছেলে ও শিপন মিয়া একই উপজেলার উচাখিলা ইউনিয়নের মরিচারচর টানপাড়া মলামারি গ্রামের মৃত আবু ছাঈদের ছেলে।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, মোফাজ্জল হোসেন ২০১৩ সালে ভোটার হন ও শিপন মিয়া ২০০৮ সালে ভোটার হয়ে জাতীয় পরিচয়পত্র সংগ্রহ করেন। এরপর ২০১৫ সালে জাতীয় পরিচয় পত্রে তাদের মৃত দেখানো হয়।মোফাজ্জল হোসেন বলেন, ২০১৩ সালে জাতীয় পরিচয়পত্র সংগ্রহ করি। এরপর কোনো প্রয়োজন পড়েনি এটির। এবার করোনার টিকার নিবন্ধন করতে গিয়ে জানলাম আমি ২০১৫ সালে মারা গেছি।

ফলে টিকা নিবন্ধন করতে পারিনি।ভুক্তভোগী শিপন মিয়া বলেন, করোনার টিকার নিবন্ধন করতে গিয়ে জানতে পারি আমি মারা গেছি। পরে স্থানীয়দের সঙ্গে পরামর্শ করে নির্বাচন অফিসে গিয়ে সংশোধনের আবেদন করেছি। এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাচন অফিসার মাহাবুবুল হক সাংবাদিকদের বলেন, অভিযোগ পাওয়ার পর কাগজপত্র ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের কাছে পাঠানো হয়েছে। দ্রুত বিষয়টি সমাধান করা হবে।

Check Also

আরও ২ মামলায় জামিন পেলেন হেলেনা জাহাঙ্গীর

আওয়ামী লীগের বহিস্কৃত বিতর্কিত ব্যবসায়ী হেলেনা জাহাঙ্গীরকে রাজধানীর গুলশান থানায় মাদক ও পল্লবী থানায় প্রতারণা …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *