ঠাকুরগাঁওয়ে দ্বিগুণ দামে বিক্রি হচ্ছে পাট

মৌসুমের শুরুতে বৃষ্টি কম হওয়ায় পাট জাগ দিতে কিছুটা বিড়ম্বনায় পড়তে হয়েছিল ঠাকুরগাঁওয়ের পাট চাষিদের। বর্তমানে সব সংশয় উড়িয়ে দিয়ে বেশি দামে পাট বিক্রি করতে পেরে বেশ আনন্দিত চাষিরা। দীর্ঘ দিন পর হাসি ফিরেছে সোনালী আঁশে।দেশের উত্তরের কৃষি নির্ভর জেলা ঠাকুরগাঁও।

ধান, গম, ভুট্টার পাশাপাশি এখানে পাট উৎপাদন হয় অন্যান্য জেলাগুলোর তুলনায় বেশি। বিগত কয়েক মৌসুম ধরে পাটের ভালো দাম না পাওয়ায় আগ্রহ হারিয়ে ফেলেছিলেন এখানকার চাষিরা। তবে চলতি মৌসুমে জেলার হাট-বাজারগুলোতে পাটের দাম ভালো পাচ্ছেন তারা।কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের তথ্য মতে, আগের যেকোনো বছরের তুলনায় এবার পাট বিক্রি হচ্ছে বেশি দামেই। প্রতি মণ ৩ থেকে ৪ হাজার টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে বাজারে।

ঠাকুরগাঁও জেলায় এবার পাট চাষের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছিল ৬ হাজার ৮১৭ হেক্টর জমিতে। কিন্তু ৫২৫ হেক্টর বেড়ে পাটের চাষাবাদ হয়েছে ৬ হাজার ২৯২ হেক্টর জমিতে।সদর উপজেলার বড় খোচাবাড়ি বাজার, রোড রেল স্টেশন বাজার, গড়েয়া বাজার গিয়ে দেখা যায়, পাট চাষিরা ভ্যান, অটোরিকশা, ভটভটি আবার নসিমনে করে পাট নিয়ে আসছেন বিক্রির জন্য।

Check Also

৫ অক্টোবর ঢাবির হল খোলার সুপারিশ প্রভোস্ট কমিটির

করোনা পরিস্থিতির কারণে প্রায় দেড় বছর ধরে বন্ধ থাকা আবাসিক হলগুলো খুলে দেওয়ার সুপারিশ করেছে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *