গৃহযুদ্ধের মুখে পড়তে যাচ্ছে আফগানিস্তান: মার্কিন সেনা কর্মকর্তা

তালেবান ক্ষমতা দখলের পর থেকে তীব্র সংকটের মধ্যে দিন কাটছে আফগানিস্তানে। এমন পরিস্থিতিতে দেশটি গৃহযুদ্ধের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন মার্কিন সেনাদের সর্বোচ্চ পদধারী জয়েন্ট চিফস অব স্টাফের চেয়ারম্যান মার্ক মিলি। স্থানীয় সময় গতকাল শনিবার তিনি এমন ইঙ্গিত দেন বলে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা এএফপি।

রাজধানী কাবুলের পতনের মধ্য দিয়ে আফগানিস্তান তালেবানের নিয়ন্ত্রণে এলেও সংঘাত থামেনি। দেশটির পানশির প্রদেশে বিরোধীদের সঙ্গে তালেবানের তীব্র লড়াই চলছে। সেখানে বহু হতাহতের দাবি করেছে তালেবান ও বিরোধীরা। পাশাপাশি ভেঙে পড়তে চলেছে আফগানিস্তানের অর্থনীতি। দেশটির ব্যাংকগুলো এখন প্রায় অর্থশূন্য। বন্ধ রয়েছে বিভিন্ন আর্থিক সহায়তাও। এর মধ্যে কাবুল, হেরাতসহ বিভিন্ন অঞ্চলে অধিকার আদায়ের দাবিতে নেমেছেন আফগান নারীরা। এসব বিক্ষোভ ছত্রভঙ্গ করতে তালেবানের হামলা চালানোর ঘটনাও ঘটেছে।

বিজ্ঞাপন
মার্কিন সংবাদমাধ্যম ফক্স নিউজকে মার্ক মিলি বলেন, ‘আমার সামরিক হিসাব–নিকাশ বলছে, পরিস্থিতি গৃহযুদ্ধের দিকে গড়াচ্ছে।’ গৃহযুদ্ধের জের ধরে আফগানিস্তানে আল-কায়েদা ও ইসলামিক স্টেটের (আইএস) মতো সন্ত্রাসী সংগঠনগুলো আবার মাথাচাড়া দিয়ে উঠতে পারে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করেন তিনি। এই সেনা কর্মকর্তা বলেন, আগামী ১২, ২৪ অথবা ৩৬ মাসের মধ্যে আফগানিস্তানে সন্ত্রাসবাদের পুনরুত্থান হতে পারে।

Check Also

অনলাইন থেকে শুক্রাণু কিনে ‘ই-বেবি’র জন্ম দিলেন নারী

সন্তান পেতে চেয়েছিলেন। তবে শুধু এই কারণে বাধ্য হয়ে কোনো সম্পর্কে জড়াতে চাননি ৩৩ বছর …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *