যৌতুক না পেয়ে স্ত্রীকে রড দিয়ে পেটালেন পুলিশ সদস্য

কুষ্টিয়ায় আবু সাঈদ নামে এক পুলিশ সদস্যের বিরুদ্ধে যৌতুকের জন্য স্ত্রীকে রড দিয়ে পিটিয়ে আহত করার অভিযোগ উঠেছে। নির্যাতনের শিকার মনিকা খাতুন কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

এ ঘটনায় শনিবার কুষ্টিয়া মডেল থানায় অভিযোগ করেছেন মনিকার বাবা। অভিযুক্ত আবু সাঈদ বর্তমানে কুষ্টিয়া পুলিশ লাইনে কনস্টেবল হিসেবে কর্মরত।

পরিবার সূত্রে জানা গেছে, দুই বছর আগে চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা উপজেলার হাতিভাঙ্গা গ্রামের আমজাদ হোসেনের ছেলে আবু সাঈদের সঙ্গে একই উপজেলার জুরাইনপুরের মতিয়ার রহমানের মেয়ে মনিকা খাতুনের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকেই যৌতুকসহ নানা কারণে স্বামীর হাতে নির্যাতনের শিকার হচ্ছিলেন মনিকা। শুক্রবারও যৌতুকের দাবিতে স্ত্রীকে লোহার রড দিয়ে পিটিয়ে আহত করেন কনস্টেবল আবু সাঈদ। পরে শনিবার গুরুতর অবস্থায় মনিকাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে পুলিশ। সেখানে দুইদিন ধরে চিকিৎসাধীন তিনি।

কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের আরএমও ডা. আশরাফুল আলম জানান, ওই গৃহবধূকে হাসপাতালে নেয়ার সময় তলপেটসহ শরীরের বিভিন্ন জায়গায় ক্ষতচিহ্ন দেখা গেছে। এছাড়া ক্ষত থেকে রক্তক্ষরণ হচ্ছিল। তবে বর্তমানে তিনি আশঙ্কামুক্ত।

Check Also

অনলাইন থেকে শুক্রাণু কিনে ‘ই-বেবি’র জন্ম দিলেন নারী

সন্তান পেতে চেয়েছিলেন। তবে শুধু এই কারণে বাধ্য হয়ে কোনো সম্পর্কে জড়াতে চাননি ৩৩ বছর …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *