ব্যাংক থেকে ফেরার পথে নারীর কাছ থেকে লাখ টাকা ছিনতাই

ঝিনাইদহে ব্যাংক থেকে টাকা তুলে রাস্তা পার হওয়ার সময় পারভিন খাতুন নামের এক নারীর কাছ থেকে এক লাখ টাকা ছিনতাই হয়েছে। এ ঘটনায় ওই নারী বারবার জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন। এ সময় তার সঙ্গে থাকা ১১ বছরের ছেলে মাকে জ্ঞান ফেরানোর চেষ্টা করে। সোমবার (১১ অক্টোবর) বেলা ১১টার দিকে ঝিনাইদহ সোনালী ব্যাংক শাখার সামনে এ ঘটনা ঘটে। ওই নারী হরিণাকুন্ডু উপজেলার রথখোলা গ্রামের বাবলুর রশিদের স্ত্রী।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, একজন নারী বোরকা পরিহিত অবস্থায় ব্যাংকের সামনে রাস্তা পার হচ্ছিলেন। এ সময় কয়েকজন লোক এসে তাকে ঘিরে ফেলেন এবং তার সঙ্গে ধস্তাধস্তি করে। এ সময় স্থানীয়রা দৌড়ে কাছে যেতেই তারা পালিয়ে যান। তখন ওই নারী বলেন, তার টাকা ছিনতাই করা হয়েছে। পরে তিনি কাঁদতে কাঁদতে আবার ব্যাংকে প্রবেশ করেন।

ওই নারীর ছেলে জিহাদের ভাষ্যমতে, সকালে সে তার মায়ের সঙ্গে ঝিনাইদহ সোনালী ব্যাংকে টাকা উঠাতে যায়। পরে ব্যাংক থেকে দুই লাখ তিন হাজার ৪৬০ টাকা তুলে নিচে নেমে তারা রাস্তা পার হচ্ছিলেন। এ সময় মুখে মাস্ক পরা চার থেকে পাঁচজন তাদের ঘিরে ফেলেন। তারা টাকার ব্যাগ নিয়ে টানাটানি করেন। একপর্যায়ে ব্যাগ থেকে কিছু টাকা উঠিয়ে নেন। পরে লোকজন দৌড়ে এলে তারা পালিয়ে যান।

স্থানীয় হুমায়ুন বলেন, পারভিন খাতুন আমার ছোট ভাইয়ের স্ত্রী। আমি বাড়িতে ছিলাম। আমার কাছে তার ফোন নম্বর থেকে একটি ফোন আসে। জানানো হয় ব্যাংক থেকে নামার পরপর তার কাছ থেকে টাকা ছিনতাই হয়েছে। এরপর আমি ব্যাংকে চলে আসি।

Check Also

অস্ট্রেলিয়ায় ওমিক্রনের কমিউনিটি ট্রান্সমিশন হচ্ছে

অস্ট্রেলিয়ার সবচেয়ে বড় শহর সিডনিতে মহামারি করোনাভাইরাসের নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রনের কমিউনিটি ট্রান্সমিশন ঘটছে। ইতিমধ্যে পাঁচ …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *