রিকশাচালক বাবার ঘরের টিন খুলে নিল ছেলের পাওনাদাররা

আমারা বড় ছেলে আবুল কাশেম বৌ নিয়ে আলাদা থাকে। তার কাছে স্থানীয় ইউনুস, আবুল কালাম ও রবিন নামে তিন যুবক টাকা পাবে বলে দাবি করে আসছে। কিন্তু কিসের টাকা বা কত টাকা পাবে তা আমি জানি না। আর এ টাকার জন্য প্রায়ই গালমন্দ ও মারধরের হুমকি শুনতে হয়েছে আমাকে। গত শুক্রবার আমার ঘরের টিনের চাল খুলে নিয়ে যায় ওই তিন যুবক।

রোববার দুপুরে কান্নাজড়িত কণ্ঠে এভাবেই কথাগুলো বলছিলেন আবদুর রহিম নামে এক বৃদ্ধ রিকশাচালক। তিনি লক্ষ্মীপুর পৌর শহরের দক্ষিণ মজুপুর গ্রামের বাসিন্দা। তার দুই ছেলে, এক মেয়ে। অন্যদিকে, অভিযুক্তরা হলেন- একই এলাকার সিরাজের ছেলে ইউনুস, আলীর ছেলে আবুল কালাম ও খোকনের ছেলে রবিন।

আবদুর রহিম বলেন, ছেলের অপরাধের জন্য বাবাকে শাস্তি ভোগ করতে হবে, এটা কেমন বিচার। আমি রিকশা চালিয়ে কোনোরকমে স্ত্রী, স্কুল পড়ুয়া দুই নাতনী ও প্রতিবন্ধী ছোট ছেলেকে নিয়ে থাকি। কার সঙ্গে আমার ছেলের ব্যবসা আছে তাও জানা নেই। তাকে না পেয়ে টাকা পাওয়ার দাবি করে তারা বাড়িতে হামলা করে আমার ঘরের টিনের চাল খুলে নিয়ে যায়। এখন চালবিহীন (ছাউনি ছাড়া) ঘরে গত তিনদিন মানবেতর জীবনযাপন করছি। রাতে কুয়াশায় ভিজতে হচ্ছে আবার উপরে ছাউনি না থাকায় দিনে রৌদে কষ্ট পেতে হচ্ছে।

এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত থানায় কোনো অভিযোগ করেননি ওই রিকশাচালক। কারণ হিসেবে তিনি জানিয়েছেন, মামলা করতে টাকা লাগে, সে টাকা তো আমার নাই। ঘটনার পর থেকেই আমি মানসিকভাবে ভেঙে পড়েছি। গত তিনদিন রিকশা নিয়ে বের হতে পারিনি। এছাড়া অভিযুক্তরাও প্রভাবশালী।

Check Also

অস্ট্রেলিয়ায় ওমিক্রনের কমিউনিটি ট্রান্সমিশন হচ্ছে

অস্ট্রেলিয়ার সবচেয়ে বড় শহর সিডনিতে মহামারি করোনাভাইরাসের নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রনের কমিউনিটি ট্রান্সমিশন ঘটছে। ইতিমধ্যে পাঁচ …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *