ফজরের নামাজ পড়া হলো না ১৫ তাবলিগ সদস্যের!

পটুয়াখালী-কুয়াকাটা মহাসড়কের মহিপুরে একটি মসজিদে তাবলিগ জামাতের ১৫ সদস্যকে কুপিয়ে অজ্ঞান করে লুটপাট করা হয়েছে। শনিবার (৪ ডিসেম্বর) রাতে খাবারের সঙ্গে চেতনানাশক দেওয়ার দাবি জানান তাবলিগ জামাত সদস্যরা।

তাবলিগ জামাতের সদস্য রোমান মিয়া আরটিভি নিউজকে বলেন, রাতের খাবার খেয়ে ঘুমিয়ে পড়েন তারা। মাঝরাতে ঘুম থেকে উঠে দেখেন তাদের টাকা লুট হয়ে গেছে। এরপর অন্যদের জাগানোর শত চেষ্টা ব্যর্থ হয়েছে। স্থানীয় মুসল্লিরা ফজরের নামাজ পড়তে এসে পুলিশকে খবর দেন। মহিপুর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে অসুস্থদের উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠায়।

রোববার (৪ ডিসেম্বর) সকালে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের ৪০ নম্বর ওয়ার্ডের ভাটারা থেকে গুরুতর অসুস্থ আটজনকে কুয়াকাটা ২০ শয্যা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

মহিপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খায়ের কাওছার ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Check Also

আবরারের পরিবারকে ১২ বছর মাসিক ৭৫ হাজার টাকা দেবে বুয়েট!

বাংলাদেশ প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট) আগামী ১২ বছরের জন্য নিহত বুয়েট ছাত্র আবরার ফাহাদের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *